সোনাহাট স্থল বন্দর দিয়ে শুরু হয়েছে পন্য আমদানী ও রপ্তানীর কাজ

নিউজ ডেস্ক:

কুড়িগ্রামে সোনাহাট স্থল বন্দর দিয়ে দীর্ঘ আড়াই মাস বন্ধ থাকার পর শুরু হয়েছে পন্য আমদানী ও রপ্তানীর কাজ।
করোনা সংক্রমন ঠেকাতে এ বছরের ২৫ মার্চ ভারতের ধুবরী জেলা লকডাউন করা হলে এ বন্দর দিয়ে সকল প্রকার পণ্য আমদানী রপ্তানী বন্ধ করে দেয় ভারত সরকার। একই সাথে বাংলাদেশের ব্যাবসায়ীরাও ঐ দিন থেকে বন্দরের সকল প্রকার কার্যক্রম বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়।

পরবর্তীতে করোনা সংক্রমন এড়াতে সামাজিক দুরত্ব মানার পাশাপাশি হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও স্প্রেসহ বিভিন্ন পদ্ধতি অবলম্বনের মাধ্যমে দু’দেশের ব্যাবসায়ীরা ১৪ জুন থেকে এ বন্দর দিয়ে পন্য আমদানী রপ্তানীর কাজ শুরু করে।

সোনাহাট বন্দর সিন্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশন সভাপতি সরকার রকিব আহমেদ জুয়েল জানান, সম্পূর্ণ স্বাস্থ্য সুরক্ষা মেনে পন্য আনা নেয়ার কাজ চালু রাখা হবে।

উল্লেখ্য এ বন্দর দিয়ে পাথর ও কয়লা আমদানী করেন বাংলাদেশী ব্যবসায়ীরা অন্যদিকে প্লাষ্টিক সামগ্রী, গার্মেন্টস ঝুট, নেট ও পামওয়েল আমদানী করেন ভারতীয় ব্যবসায়ীরা।